প্রধান মেনু

আনুশকা অভিনীত যে সিনেমাটা কোহলির ফেভারিট

খেলার মানুষ, ভালোভাসেন সিনেমাও। সময় পেলেই ছুটে যান সিনেমা হলে। কখনো আবার ঘরে বসেই ইউটিউবে দেখেন প্রিয় মুভিগুলো। বাদ দেননা স্ত্রী আনুশকা শর্মা অভিনীত মুভিও। তবে এতদিন বলেননি আনুশকার অভিনয় করা মুভির মধ্যে সেরাটার নাম। রোববার (১ ডিসেম্বর) প্রকাশ করেছেন। একথায় উত্তর দিতে গিয়ে কোহলি বলেন, আমার চোখে ‘অ্যায় দিল হ্যায় মুশকিল’ সিনেমাই সেরা।

করণ জোহর পরিচালিত ‘অ্যায় দিল হ্যায় মুশকিল’ ছবিটা মুক্তি পায় ২০১৬ সালের ২৮ অক্টোবর। যেখানে আনুশকার বিপরীতে অভিনয় করেছেন রণবীর কাপুর। যে ছবিটা কোহলির মনে ধরেছে বেশ। এখনো ইউটিউবে দেখেন তিনি এমনটা উল্লেখ করে ভারতীয় দলনেতা বলেন, ‘ছবির দৃশ্যগুলো সত্যিই দারুণ। কাহিনীটা ছিল আরও মনোমুগ্ধকর। আর গানগুলো অনেকের হৃদয়ে জায়গা করে নিয়েছে। আমি সময় পেলে ইউটিউবে মুভিটা দেখি। কখনো আবার টেনে টেন কিছু দৃশ্য দেখি। আমার চোখে এটাই সেরা।’

এ দিকে বাংলাদেশ সিরিজ শেষে পরিবারের সঙ্গে সময় কাটাচ্ছেন ভারতীয় ক্রিকেটারা। ব্যক্তিক্রম নন কোহলিও। সম্প্রতি স্ত্রী আনুশকা শর্মাকে সঙ্গে নিয়ে সিনেমা দেখতে যান তিনি। ভক্তদের মধুর জ্বালাতন এড়াতে দিনের বদলে রাতকেই বেছে নেন তারা। তবু হলো না রক্ষা। ব্যাক্তিগত গাড়ি থেকে নামা মাত্র চারদিক থেকে ঘিরে ধরে মানুষ। কেউ অটোগ্রাফ, কেউ সেলফির আবদার জুড়ে দেন।

এমন সব ঝামেলা মিটিয়ে শেষমেশ সিনেমা দেখে বাড়ি ফেরেন কোহলি। এরপর টুইটারে ছবিও পোস্ট করেছেন তিনি। যেখানে বিরাট লেখেন, ‘গত রাতে সিনেমা হলে হটির সঙ্গে।’ এই পোস্ট আবার আনুশকা শর্মাকে ট্যাগও করেন ভারতীয় দলনেতা। সঙ্গে একটি হার্টের ইমোজি দেন তিনি।

তার আগে গত বুধবার (২৭ নভেম্বর) ভুটান ভ্রমণের ছবি পোস্ট করে স্মৃতি রোমন্থন করেছিলেন কোহলি। যেখানে দেখা যাচ্ছে স্ত্রী অনুষ্কার সঙ্গে পাহাড়ি রাস্তায় ট্রেক করছেন তিনি। ওই ছবি পোস্ট করে বিরাট লেখেন, ‘জীবনে চলায় ক্ষেত্রে এক সঙ্গে হাঁটাটা ভালোবাসা ছাড়া আর কিছু না।’