প্রধান মেনু

তাড়াশে স্কুল শিক্ষিকাকে নিয়ে উধাও ছাত্রলীগ নেতা

সোহেল রানা সোহাগঃ
সিরাজগঞ্জের তাড়াশে এক সন্তানের জননী ও স্কুল শিক্ষিকাকে নিয়ে উধাও হয়েছেন তালম ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারন সম্পাদক আতিকুল ইসলাম কপিল। এ নিয়ে থানা সাধারণ ডায়েরি করেছেন স্কুল শিক্ষিকার শশুর । জানা গেছে, তালম ইউনিয়নের ছাত্রলীগ সাধারন সম্পাদক ও বড়ইচড়া ভেংড়ি গ্রামের হাকিম উদ্দিন এর ছেলে আতিকুল ইসলাম কপিলের সাথে উপজেলার কুন্দাশন সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষিকা ও একই ইউনিয়নের উপরসিলট গ্রামের জয়নাল আবেদীনের ছেলে সোহেল রানার স্ত্রী এক সন্তানের জননী রেশমা খাতুনের সাথে দীর্ঘদিন ধরে প্রেমের সম্পর্ক চলছিল। এরই এক পর্যায়ে গতকাল শুক্রবার বিকেলে সবার অগোচরে রেশমা তার স্বামীর বাড়ি থেকে প্রেমের টানে ছাত্রলীগনেতা আতিকের হাত ধরে উধাও হয়। এ নিয়ে এলাকায় ব্যাপক আলোচনা সমালোচনার সৃষ্টি হয়েছে।

বিষয়টি নিয়ে তালম ইউনিয় ছাত্রলীগের সদ্য পদত্যাগ কারী সভাপতি সোহেল রানা আতিকুল ইসলাম কপিল তালম ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারন সম্পাদক নিশ্চিত করে বলেন, আমি ছাত্রলীগ থেকে সদ্য যুবলীগে যোগদিয়েছি । তাই বিষয়টি নিয়ে কোন মন্তব্য করছিনা তবে এটা খুব দুঃখ জনক।

এ ব্যাপরে ছাত্রলীগ নেতা আতিকুল ইসলাম কপিলের মামা ও তালম ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল খালেক বলেন, গত ৩ মাস পূর্বে ওই স্কুলের শিক্ষিকা রেশমা তার পূর্বের স্বামী সোহেল রানাকে নিয়মতান্ত্রিক ভাবে তালাক দেয়। তালাক দেওয়ার ৩ মাস পরে গতকাল শুক্রবার দুপুরে আমার ভাগ্নে আতিক ও রেশমা খাতুন শরীয়ত মোতাবেক বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয়েছে। আমার ভাগ্নে আতিক শিক্ষিকাকে নিয়ে উধাও হয়নি। এ দিকে মেয়ের শশুর জয়নুল আবেদীন পুত্র বধূ কাউকে না জানিয়ে বাড়ী থেকে সবার অগোচরে চলে যাওয়ার বিষয়ে এবং কোথায় খুজেঁ না পাওয়ায় থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেছেন। জিডি নং ৭২৬, তাং ১৬-১১-১৯ইং।