প্রধান মেনু

পাবনায় করোনা পরিস্থিতিতে নিম্ন আয়ের মানুষের মধ্যে সরকারি পণ্য সামগ্রী বিতরণ শুরু

করোনা প্রভাবে পাবনায় নিম্ন আয়,কর্মহীন, দরিদ্র এবং অসহায় মানুষদের জন্য সরকারি পর্যায়ে ত্রাণ বিতরণশুরু করা হয়েছে। পাবনার জেলা প্রশাসক কবীর মাহমুদ বলেন জেলা
প্রশাসনকে ৬৮০মেট্রিক টন খাদ্য সামগ্রী এবং ২৭ লক্ষ নগদ টাকাবরাদ্দ করা হয়েছে। করোনা পরিস্থিতিতে ক্ষতিগ্রস্থ মধ্যবিত্ত ও নিম্ন
বিত্তদের জন্যও কিছু বিশেষ বরাদ্দ রাখা হয়েছে। এসব সাহায্য সামগ্রীউপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাদের মাধ্যমে বিতরন শুরু হচ্ছে। জেলাপ্রশাসন থেকে ৯ উপজেলার জন্য একটি করে বিশেষ মোবাইল নম্বর
প্রদান করা হয়েছে। সংশ্লিষ্টরা এসব নম্বরে যোগাযোগ করলে তাদেরকে সহায়তা দেয়া হবে। এমনকি ত্রাণ বঞ্চিত যে কোন ব্যাক্তি ঐ নাম্বারগুরোতে ফোন করে তার সমস্যার কথা জানালে প্রশাসন দ্রুত ব্যবস্থানেবে। আজ শনিবার দুপুরে পাবনার জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষেকরোনা পরিস্তিতি সংক্রান্ত এক সংবাদ সম্মেলনে জেলা প্রশাসক কবীর
মাহমুদ এসব কথা বলেন।
তিনি আরও বলেন পাবনা জেলার প্রশাসন ক্যাডার এর ৩৫ জন কর্মকর্তারএ বছরের বৈশাখী উৎসব ভাতা বাবদ প্রাপ্ত প্রায় আড়াই লক্ষ টাকাইতোমধ্যে বাংলাদেশ এ্যাডমিনিষ্ট্রেটিভ সার্ভিস এসোসিয়েশনের
তহবিলে জমা দেয়া হয়েছে। এছাড়া পাবনা জেলা প্রশাসনের অধীন সকল
কর্মকর্তা-কর্মচারিদের একদিনের বেতনের প্রায় ৪ লক্ষ টাকা পাবনা জেলার অসহায় দরিদ্র মানুষের মধ্যে বিতরন করার উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।
সংবাদ সম্মেলনে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক
(সার্বিক) শাহেদ পারভেজ, স্থানীয় সরকার উপ-পরিচারক আফরোজাআখতার, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেট জাহিদ নেওয়াজ, পাবনা প্রেসক্লাবের সভাপতি এবিএম ফজলুর রহমান, সংবাদপত্র পরিষদের সভাপতি
আব্দুল মতীন খান প্রমুখ।