প্রধান মেনু

পাবনা চাটমোহরের আরেক কৃতি সন্তান-দিলীরুজ্জামান

মোঃ নূরুল ইসলাম, চাটমোহর পাবনাঃ

গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার সংবিধানের ৯৫ অনুচ্ছেদে প্রদত্ত ক্ষমতাবলে মহামান্য রাষ্ট্রপতি বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্টের অতিরিক্ত বিচারপতি খন্দকার দিলীরুজ্জামান-কে বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্ট, হাইকোর্ট বিভাগে বিচারপতি হিসেবে নিয়োগ লাভ করেছেন।

৩০ মে শনিবার বিকেলে প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন ভার্চ্যুয়ালি খন্দকার দিলীরুজ্জামান শপথবাক্য পাঠ করেছেন এবং আজ ৩১ মে রবিবার তিনি দায়িত্ব গ্রহণ করেছেন।
পাবনা জেলায় এই প্রথম খন্দকার দিলীরুজ্জামান বিচারপ্রতি হিসেবে নিয়োগ প্রাপ্ত হলেন।

খন্দকার দিলীরুজ্জামান ১৯৭৩ সালের ২৩ এপ্রিল চাটমোহর উপজেলার হরিপুর ইউনিয়নের ধরইল গ্রামের ঐতিহ্যবাহী খন্দকার বাড়ি’র মরহুম খন্দকার হাবিবুর রহমান ও মরহুমা নুরজাহান খন্দকারের ঘরে জন্মগ্রহণ করেন।

তিনি স্থানীয় ধরইল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় থেকে প্রাথমিক শিক্ষা শেষে চাটমোহর আরসিএন এন্ড বিএসএন পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ে ভর্তি হন, পরবর্তীতে খুলনা সরকারি ল্যাবরেটরী স্কুল থেকে প্রথম বিভাগ নিয়ে এসএসসি পাশ করেন। খুলনা পাবলিক কলেজ থেকে এইচএসসি পাশ করে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় থেকে এলএলবি (অনার্স) ও এলএলএম ডিগ্রী লাভ করে ১৯৯৯ সালে আইনজীবী হিসেবে ঢাকা জজ কোর্টে প্র্যাক্ট্রিস শুরু করেন।
২০০১ সালে তিনি সুপ্রীম কোর্টের আইনজীবি হিসেবে তালিকাভূক্ত হন। ২০০৭ সালে সহকারি এটর্নী জেনারেল এবং ২০১৩ সালে ডেপুটি এটর্নী জেনারেল হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। পরবর্তিতে ২০১৮ সালে তিনি খন্দকার দিলীরুজ্জামান সুপ্রিম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগ অতিরিক্ত বিচারপতি হিসেবে দায়িত্ব লাভ করেন। সর্বশেষে তিনি সুপ্রিম কোর্টের হাটকোর্ট বিভাগে স্থায়ী বিচারপ্রতি হিসেবে দায়িত্ব লাভ করলেন।

চাটমোহরের মেধাবী সন্তান খন্দকার দিলীরুজ্জামান দেশের সর্বোচ্চ আদালতের মাননীয় বিচারপতি হিসেবে নিয়োগ পাওয়ায় চাটমোহর ব্যবসায়ী সমাজের পক্ষ থেকে প্রাণঢালা অভিনন্দন ও শুভেচ্ছা জানিয়েছেন। একই সাথে তাঁর সুস্বাস্থ্য, দীর্ঘায়ু এবং সর্বাঙ্গীণ কল্যাণ কামনা করেছেন।