প্রধান মেনু

ব্যবসায়ীদের ক্ষোভ প্রকাশ

ফরিদপুরে ইসলামী ব্যাংক বাংলাদেশ এর এজেন্ট ব্যাংককিং শাখা উদ্ভোধন

গতকাল মঙ্গলবার ফরিদপুরে ইসলামী ব্যাংক বাংলাদেশ লি: এর এজেন্ট শাখা উদ্ভোধন করা হয়। উদ্ভোধন করেন উপজেলা চেয়ারম্যান অধ্যাপক গোলাম হোসেন, বক্তব্য রাখেন মেয়র খ. ম কামরুজ্জামান মাজেদ, ভাইস চেয়ারম্যান নুরুল ইসলাম কুদ্দুস, বণিক সমিতির সভাপতি হাসান আলী প্রমূখ। হাসান আলীসহ স্থানীয় ব্যবসায়ীরা এখানে একটি ইসলামী ব্যাংকের শাখার খোলার জন্য ২০১৮ সালে ব্যাংকের সাবেক এমডি আব্দুল হামিদ মিয়ার সাথে যোগাযোগ করে শাখাটি চূড়ান্ত করা হয়। ব্যাংক কর্তৃপক্ষ বার বার ফরিদপুরে এসে সম্পূর্ণ কাজ চূড়ান্ত করে খন্দকার মার্কেটের ভবনটি ৩ মাসের মধ্যে দোতলা করে দেওয়ার মৌখিক নির্দেশ দেন। এ ব্যাপারে খন্দকার মার্কেটের খন্দকার মোস্তফা কামাল (কমল) রাজশাহী জোন প্রধান মো. কাওসার আলম এর কাছে লিখিত আদেশ চাইলে তিনি বলেন, ইসলামী ব্যাংকের মৌখিক নির্দেশই চূড়ান্ত তবে আপনার আবেদন ঢাকাতে পাঠানো হয়েছে পাস হয়ে এলেই আপনি সেটা পাবেন। কমল পাকা টিনসেট ঘর ভেঙ্গে মূল বিল্ডিংয়ের দোতলার কাজ শুরু করেন। তার সিংহ ভাগ কাজ যখন শেষ তখন ফরিদপুরের সন্তান ইসলামী ব্যাংকের এমডি মো. আব্দুল হামিদ মিয়া অবসরে গেলে কর্তৃপক্ষ এ ব্যাংকের শাখা উদ্ভোধন স্থগিত করেন। খন্দকার মার্কেটের কমল বলেন, ইসলামী ব্যাংকের একজন জোন কর্মকর্তার মৌখিক নির্দেশে আমার প্রায় ১২ লক্ষ টাকা ক্ষতি হয়েছে। পূর্ণাঙ্গ ব্যাংকের পরিবর্তে চাটমোহর শাখা ব্যাংকের অধীনে একটি এজেন্ট ব্যাংককিং খোলায় স্থানীয় ব্যবসায়ীরা হতাশ, ক্ষুব্ধ এবং কর্তৃপক্ষের এই কাজকে ব্যবসায়ীরা নিজেদেরকে অপমানিত মনে করছেন।