প্রধান মেনু

বগুড়া চেলোপাড়ায় সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের মাঝে বস্ত্র বিতরণ অনুষ্ঠিত

বগুড়া জেলা পুলিশ সুপার আলী আশরাফ ভূঞা বিপিএম (বার) বলেছেন, সকল বৈষম্য ভুলে ধর্মীয় সম্প্রীতিতে সকলের মুখে হাসি ফুটিয়ে যে প্রশান্তি পাওয়া যায় তা দিয়েই শারদীয় উৎসবের প্রকৃত সুখ অর্জিত হয়। বাঙালির অন্যতম বড় উৎসব শারদীয় দুর্গাপূজায় তাইতো একে অপরের সাথে নিজেদের সুখ এবং আনন্দ ভাগ করার মাঝেই প্রকৃত প্রশান্তি নিহিত।
শহরের চেলোপাড়া দূর্জয় ক্লাব প্রাঙ্গণে ক্ষুদে শিক্ষার্থীদের সংগঠন মিতালীর আয়োজনে এব্ং বগুড়া জেলা পুলিশের সহযোগিতায় শুক্রবার সকালে প্রায় ২ শতাধিক সুবিধাবঞ্চিত শিশুর মাঝে পূজা উপলক্ষ্যে নতুন বস্ত্র বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি উপোরোক্ত কথাগুলি বলেন। মিতালী সংগঠনের মিষ্টি দত্ত ও চৈতী সাহার ব্যবস্থাপনায় অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার যথাক্রমে সদর সার্কেলের সনাতন চক্রবর্তী ও শেরপুর সার্কেলের গাজিউর রহমান, সহকারী পুলিশ সুপার যথাক্রমে গাবতলী সার্কেলের সাবিনা ইয়াসমিন, শিবগঞ্জ সার্কেলের কুদরত-ই খুদা শুভ ও নন্দীগ্রাম সার্কেলের রাজিউর রহমান, বগুড়া পুলিশ লাইন্স স্কুল এন্ড কলেজের অধ্যক্ষ ও জেলা কমিউনিটি পুলিশিং কমিটির সদস্য সচিব শাহাদৎ আলম ঝুনু, বগুড়া সদর থানার অফিসার ইনচার্জ এস.এম বদিউজ্জামান, ইন্সপেক্টর জামিরুল ইসলাম, কমিউনিটি পুলিশিং জেলা কমিটির সদস্য যথাক্রমে নজরুল ইসলাম রঞ্জু ও বিধান চন্দ্র সিংহ, জাতীয় ক্রিড়াবীদ গোপাল তেওয়ারী, বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ বগুড়া পৌর কমিটির সভাপতি পরিমল প্রসাদ রাজ ও সাধারণ সম্পাদক ডা: সুজিত কুমার তালুকদার। বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ বগুড়া পৌর কমিটির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সাংবাদিক সঞ্জু রায়ের সঞ্চালনায় সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের মুখে হাসি ফোটানোর উক্ত অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন মিতালী সংগঠনের শিক্ষার্থীদের পক্ষে প্রিয়াংকা সরকার, সঙ্গীত ভৌমিক, সিয়াম, অনামিকা, শিমু, আবির সহ জেলা পুর্লিশের বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকতা এবং পূজা উদযাপন পরিষদের নেতৃবৃন্দ।