প্রধান মেনু

ভাঙ্গুড়ায় কমিউনিটি ক্লিনিকে নিম্নমানের নির্মাণ সামগ্রী ব্যবহার

পাবনার ভাঙ্গুড়ায় কমিউনিটি ক্লিনিক নির্মাণে নিম্নমানের নির্মাণ সামগ্রী ব্যবহার করা হচ্ছে। এনিয়ে স্থানীয় অধিবাসীদের মধ্যে চরম ক্ষোভ বিরাজ করছে। বিষয়টি নিয়ে স্থানীয় অনেকেই এর প্রতিকার চেয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে পোস্ট দিয়েছে। মজনুর রহমান মজনু নামক আইডি থেকে স্থানীয় ঐ ব্যক্তি এমন নিম্নমানের কাজ বন্ধ করে ভালো মানের কাজ করতে সংশ্লিষ্ঠ উধ্বর্তন কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষন করেছেন।

বৃহস্পতিবার সরেজমিন টেবুনিয়া-বাঘাবাড়ি রাস্তার পাশে এই উপজেলার অন্তর্গত পারভাঙ্গুড়া ইউনিয়নের পাটুলীপাড়া নামক স্থানে এই কমিউনিটি ক্লিনিক নির্মাণ করছে । সেখানে নিম্নমানের ইট ব্যবহার করে দেয়াল গাঁথা হচ্ছে। গাঁথুনিতে অল্পহাতের সংস্পর্শে বালু ও সিমেন্ট খুলে যাচ্ছে।

জানা গেছে, শেখ হাসিনা’র সরকার স্বাস্থ্য সেবা জনগণের দোরগোড়ায় পৌঁছে দেয়ার লক্ষ্যে সার দেশের ন্যায় এই ইউনিয়নের পাটুলীপাড়ায় একটি কমিউনিটি ক্লিনিক বরাদ্ধ দেয়। এই কমিউনিটি ক্লিনিকটি চালু হলে এলাকার কয়েক হাজার অধিবাসীর স্থানীয় ভাবে চিকিৎসা সেবা পাবে। এরই মধ্যে ভুমি অধিগ্রহণ ও আনুসঙ্গিত কাজ শেষে হয়ে ভবণ নিমাণের বরাদ্ধ পায়। কিন্তু এই ভবন নির্মাণে নিম্নমানের নির্মাণ সামগ্রী ব্যবহার করাতে ভবনের স্থায়ীত্ব নিয়ে অধিবাসীদের মধ্যে দেখা দিয়েছে শঙ্কা। ফলে উধ্বর্তন কর্তপক্ষের নিকট এর প্রতিকার চেয়েছেন তারা।


এবিষয়ে ঠিকাদার আজাদ বলেন, বন্যার কারণে ইট ভাটায় ভালোমানের ইট না পাওযায় ৩/৪হাজার নিম্নমানের ইট দিয়ে দেয়ালের গাঁথুনি করা হয়েছে। তবে জনতার অভিযোগের কারণে বর্তমানে কাজ বন্ধ আছে । কিন্তু নিম্নমানের ইটের তৈরি দেয়াল ভেঙ্গে ভালো মানের ইটের ব্যবহার করা হবে।

এবিষয়ে পাবনা জেলা স্বাস্থ্য প্রকৌশল বিভাগের সহকারি প্রকৌশল অফিসার শামসুল আরেফিন জানান, পাবনা জেলায় বেশ কয়েকটি উপজেলায় স্বাস্থ্য প্রকৌশল বিভাগের যে কাজ চলছে। তার মধ্যে ভাঙ্গুড়া উপজেলার পাটুলীপাড়া একটি। এইটির যার নির্মাণ ব্যয় প্রায় ২৭ লক্ষ টাকা। তবে একার পক্ষে সকল স্থানে প্রতিনিয়ত তদারকী করা মুশকিল। নিম্নমানের নির্মাণ সামগ্রী ব্যবহারের বিষয়ে সরেজমিনে দেখে ঠিকাদারের নিকট কাজ বুঝে নেওয়া হবে বলেও জানান এই কর্মকর্তা।