প্রধান মেনু

সুজানগরে নিখোঁজ শিশুর লাশ উদ্ধার, গ্রেফতার ১

সুজানগর(পাবনা) প্রতিনিধিঃ পাবনার সুজানগর থানা পুলিশ গতকাল রোববার উপজেলার বড়খাপুর গ্রামের একটি পুকুর হতে নিখোঁজ শিশু তানিয়া খাতুনের (৫) লাশ উদ্ধার করেছে। সে ওই গ্রামের সেলিম শেখের মেয়ে। শিশু তানিয়াকে অপহরণ করে হত্যার পর লাশ পুকুরে ফেলে রাখা হয় বলে তানিয়ার কাকা স্থানীয় ইউপি মেম্বার হারূন শেখের দাবি। এ ঘটনায় পুলিশ ওই গ্রামের হায়দার কাজীর ছেলে আরজু কাজীকে (২০) গ্রেফতার করেছে।
সুজানগর থানার অফিসার ইনচার্জ বদরুদ্দোজা জানান, গত বৃহস্পতিবার থেকে শিশু তানিয়াকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছিলনা। ওই দিন ভোর ৫টার দিকে বড়খাপুর গ্রামের সেকেন্দার বিশ্বাসের বাড়ির পাহাড়াদার বাড়ির একটি পুকুরে তানিয়ার লাশ ভাসতে দেখে তানিয়ার কাকা স্থানীয় ইউপি মেম্বার হারূন শেখকে খবর দেয়। এ সময় হারূন শেখ বিষয়টি সুজানগর থানা পুলিশকে জানালে পুলিশ সকাল ৭টার দিকে পুকুর থেকে তানিয়ার শরীরে ৩টি ইট বাঁধা অবস্থায় তার লাশ উদ্ধার করে। সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার (সুজানগর সার্কেল) ফরহাদ হোসেন বলেন প্রাথমিকভাবে মনে হচ্ছে শিশু তানিয়াকে শ্বাসরোধ করে হত্যার পর শরীরে ইট বেঁধে লাশ পুকুরে ফেলে দেওয়া হয়। তবে ময়না তদন্ত প্রতিবেদন হাতে না পাওয়া পর্যন্ত হত্যার বিষয়ে নিশ্চিত করে কিছু বলা যাচ্ছেনা। এ ব্যাপারে থানায় একটি হত্যা মামলা হয়েছে। পুলিশ ময়না তদন্তের জন্য লাশ পাবনা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে।