মাহমুদুল হাসান ঝিনুক বেড়া (পাবনা ) প্রতিনিধি ঃ-পাবনার বেড়া উপজেলার হাটুরিয়া-নাকালিয়া , কৈটোলা , ঢালারচর ইউপির চেয়ারম্যানদের বিরুদ্ধে ভিজিএফের চাল ও গম বিতরনে অনিয়ম ও দুর্নীতির অভিযোগ পাওয়া গেছে । ভুক্তভোগি ও এলাকাবাসি সুত্রে জানাযায়,্ ইদের আগে সরকারের তরফ থেকে অসহায় গরিবদের জন্য চাউলের পরিবর্তে ১৩ কেজি করে গম বরাদ্দ করা হয় । হাটুরিয়া-নাকালিয়া ইউপি চেয়ারম্যান মোস্তাফিজ , কৈটোলা ই্উপি চেয়ারম্যান শওকত ওসমান মাষ্টার ও ঢালারচর ইউপি চেয়ারম্যান কোরবান আলী কাছের লোকদের নাম তালিকা করে ১৩ কেজি গমের পরিবর্তে ১০/১১ কেজি গম দেয়ার অভিযোগ করেছে এলাকার ভুক্তভোগি মানুষরা । এলাবাসি আরো জানায় , বিগত সময়ে সরকারের তরফ থেকে আসা ভিজিএফের চাউল বিতরনেও একই ধরনের অভিযোগ রয়েছে ।

এছারাও কাবিখা , কাবিটা সহ আরো নানা ধরনের কাজে অনিয়ম ও দুর্নীতি করে অল্প সময়ের মাঝেই কোটিপতি বনে গেছেন এসব ইউপি চেয়ারম্যানরা। কৈটোলা ই্উপি চেয়ারম্যান শওকত ওসমান মাষ্টার নিজের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের দায়িত্ব পালন করতে গিয়ে পরিষদের দায়িত্ব পালন করতে পারেনা এমনকি ঠিক মতো পরিষদ কার্যালয়ে উপস্থিত থাকেন না বলে একাধিক সুত্র জানায়্ । ঢালারচর ইউপি চেয়ারম্যান কোরবান আলী দ্বিতীয়বার নির্বাচিত হওয়ার পর থেকেই ঠিকমত পরিষদ কার্যালয়ে না বসে নিজের ব্যবসা নিয়ে ব্যস্ত থাকেন সব সময় । এমনকি নিজের ইউনিয়নে না থেকে মাসুমদিয়া ইউপিতে বসবাস করা শুরু করেছেন । ঢালারচর ইউপি আ.লীগের সাধারন সম্পাদক নাসির উদ্দিন ব্যাপারি বলেন , সরকারের তরফ থেকে আসা অনুদান সম্পর্কে আমরা কোনদিন জানিনা । এলাকার এমপি সাহেব এমনকি পরিষদের কোন সদস্যদের সাথে তার কোন সম্পর্ক নেই । উপজেলা থেকে কাবিখা কাবিটার টাকা নিজেই উত্তোলন করে এলাকার ক্যাডারদের নিয়ে ভাগবাটোয়ারা করে খায় । যেন দেখার কেউ নেই । এব্যাপারে বেড়া উপজেলা নির্বাহি কর্মকর্তা শামসুন নাহার সুমি বলেন , বিষয়টি খতিয়ে দেখে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে । বিশেষ করে কৈটোলা ই্উপিতে সচিব না থাকা ও ঢালারচর ইউপি দুর্গম এলাকা হওয়ার দুর্নীতি হওয়ার সুযোগ রয়েছে । বিষয়টি খতিয়ে দেখে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে ।

Recommend to friends
  • gplus
  • pinterest

About the Author