গুরুদাসপুরে বিএনপি নেতা সাবেক মেয়র বাবলু আটক

গুরুদাসপুর (নাটোর) প্রতিনিধি.
নাটোরের গুরুদাসপুর পৌর বিএনপির সভাপতি সাবেক মেয়র মশিউর রহমান বাবলুসহ তিন জনকে ঢাকা থেকে আটক করা হয়েছে। পুলিশ বলছে এঘটনা তাদের নাটক, আর পরিবারের দাবি আদাবর ও মোহাম্মদপুর থানা পুলিশরসহ গুরুদাসপুর থানার এসআই তারেকুল ইসলাম নিয়ে গেছে।
পারিবারিক সুত্রে জানাযায়, সোমবার ভোর ৪টার দিকে গুরুদাসপুর থানার এসআই তারেকুল ইসলাম আদাবর ও মোহাম্মদপুর থানা পুলিশসহ পৌর বিএনপি’র সভাপতি সাবেক মেয়র মশিউর রহমান বাবলুকে তুলে নিয়ে যায়। আদাবর থানায় এন্টি করে গুরুদাসপুর থানা পুলিশ নিয়ে যায়। ওই সময় গুরুদাসপুর থানার ০২/০২-০৩-২০১৮ তারিখের মামলায় আটকের কথা জানান ওই পুলিশ সদস্যরা। এর আগে তার ভাই সাবেন শাহ (৪৫) এবং ভাগিনা হাসা কে (৩০) ঢাকার ম্যাস থেকে আটক করা হয়েছে।
আটককৃত বিএনপি নেতা বাবলু’র স্ত্রী তানজিলা পারভীন জানান, ভোর ৪টায় তারা তার স্বামীকে তুলে নিয়ে যায়। ওই সময় পুলিশের গাড়ীতে তার দেবর সাবেন শাহকে দেখেছেন। সকালে মোহাম্মদ থানা গেলে তারা জানায় আদাবর থানায় খোঁজ নেন। আদাবর থানায় গেলে তাকে জানানো হয় তাদের থানায় কোন আসামী আসেনি। শংকা নিয়ে সকালে গুরুদাসপুরের চাঁচকৈড় পুড়ানপাড়াস্থ্য বাসায় আসে। তার জিজ্ঞাসা তার স্বামী আটকের তথ্য পুলিশ গোপন করছে কেন? তাকে গুম করা হডেপণ কিনা! এনিয়ে শংকায় রয়েছেন তিনি।
গুরুদাসপুর থানার অফিসার ইনচার্জ দিলিপ কুমার দাস জানান, ১৩কোটি টাকা নিয়ে আত্মগোপনের রয়েছেন তার ভাই সাবেন শাহ। পুলিশ তাকে আটক করেনি। এটা নাটক ছাড়া কিছুইনা।#

Recommend to friends
  • gplus
  • pinterest

About the Author