পাবনায় উন্নয়ন মেলার প্রস্তুতিমুলক সভা

রফিকুল ইসলাম সুইট :
আগামী অক্টোবরে পাবনা সরকারি এডওর্য়াড কলেজ মাঠে ব্যাপক জনসম্পৃক্ততায় এবং আনন্দঘন পরিবেশে হবে পাবনার জাতীয় উন্নয়ন মেলা। এই মেলা সকলের সার্বিক সহযোগীতা কামনা করা হয়। মঙ্গলবার সকালে পাবনা জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সম্মেলন কক্ষে জেলা প্রশাসনের আয়োজনে ৪র্থ জাতীয় উন্নয়ন মেলার প্রস্তুতিমুলক সভায় বক্তারা এসব কথা বলেন।
সভায় বক্তারা বলেন- প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বের এই সরকার এবং দেশের মানুষের প্রচেষ্টায় দেশে ব্যাপক উন্নয়ন হয়েছে। বর্তমান সরকারের উন্নয়ন, লক্ষ্য, সেবা, নাগরিক সুযোগ সুবিধা, তথ্য সম্পর্কে মানুষকে অবহিত করার জন্য জাতীয় উন্নয়ন মেলার আয়োজন করা হয়। মানুষের চাহিদা, মতামত, পরামর্শ এই মেলার মধ্যদিয়ে সরকারকে অবহিত করা হয়। পাশাপাশি উদ্ভাবন, সংস্কৃতি, শিক্ষা এই মেলার মাধ্যমে বিনিময় হয়। সরকার ও জনগনের সেতুবন্ধন হবে জাতীয় উন্নয়ন মেলা। উন্নয়ন তরান্বিত হবে সরকার ও জনগণের সেতুবন্ধনে।
সভাসুত্রে জানাগেছে- সরকারি এডওয়ার্ড কলেজ মাঠে আগামী ৪, ৫ এবং ৬ অক্টোবর ২০১৮ তারিখ বেলা ১০টা থেকে সন্ধ্যা ৮টা পর্যন্ত উন্নয়ন মেলা চলবে। এরপর রাত ১০টা পর্যন্ত চলবে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান, প্রথমদিন সকাল ৯ টায় রফিকুল ইসলাম বকুল পৌর মিলনায়তন থেকে একটি বর্ণাঢ্য র‌্যালী বের হয়ে এডওয়ার্ড মাঠে গিয়ে শেষ হবে। রচনা প্রতিযোগীতা, মিডিয়া কর্নার, পিঠা উৎসব, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান, পুরুস্কার বিতরণ, আলোচনা সভাসহ নানা কর্মসুচী থাকবে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উল্লেখ যোগ্য ১০ টি বিষেশ উদ্যোগ প্রচারণা। রূপকল্প ২০২১ ও ২০৪১ এ উন্নত বাংলাদেশের প্রস্তবনা স¤পর্কে জনগণকে উদ্বুদ্ধকরণ। ২০৪১ অর্জন এবং বাস্তবায়নের সাথে জনগণকে স¤পৃক্তকরণ। বিভিন্ন সরকারি/বেসরকারি সংস্থা কর্তৃক জনগণকে মেলা প্রাঙ্গনে তাৎক্ষনিক সেবা প্রদানের ব্যবস্থা করা হবে। পাবনা জেলার উন্নয়ন চাহিদা স¤পর্কে অবহিত হওয়া এবং গণশুনানী গ্রহণ পূর্বক স্থানীয় সমস্যার তাৎক্ষনিক সমাধান। পাবনা জেলার ঐতিহ্য ও পর্যটন সম্ভবনা তুলে ধরতে হবে। গউএ’ং অর্জনে সরকারের সাফল্য এবং ঝউএ’ং স¤পর্কে ধারণা দেয়াসহ লক্ষ্য বাস্তবায়নে জনস¤পৃক্ততা বৃদ্ধিকরণ।
¡পাবনা জেলা প্রশাসক মো. জসিম উদ্দিন এর সভাপতিত্বে সভায় এসময় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- অতিরিক্ত সচিব মো. ইয়াকুব আলী পাটোয়ারী, জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা কাজী আতিয়ুর রহমান, সংবাদপত্র পরিষদের সভাপতি আব্দুল মতীন খান, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ফিরোজ কবির, অতিরিক্ত জেলা প্রসাশক শাফিউল ইসলাম, সালমা খাতুন, রুহুল আমীন, শিক্ষা প্রকৌমলী অধিদপ্তরের নির্বাহী প্রকৌশলী এটিএম মারুফ আল ফারুকী, জনস্বাস্থ্য প্রকৌশলী অধিদপ্তরের নির্বাহী প্রকৌশলী মো. আহসান হাবিব, জেলা শিক্ষা অফিসার মো. নাসির উদ্দিন, জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার আব্দুস সালাম, জেলা সিনিয়র তথ্য কর্মকর্তা মো. ফরহাদ হোেসেন, পাবনা প্রেস ক্লাব সম্পাদক আখিনুর ইসলাম রেমন, বাসস ও ভোরের কাগজ প্রতিনিধি সহকারী অধ্যাপক রফিকুল ইসলাম সুইট, জেলা কালচারাল অফিসার মারুফা মঞ্জুরী খান, টিটিসি’র অধ্যক্ষ ইমদাদুল হক প্রমুখ ।

Recommend to friends
  • gplus
  • pinterest

About the Author