Main Menu

৮০০ পরিবারের মুখে হাসি ফুটালো জেলা পুলিশ আসন্ন রমজান উপলক্ষে বগুড়ায় হতদরিদ্রদের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ

স্টাফ রিপোর্টার: আসন্ন রমজানকে সামনে রেখে বগুড়া জেলা পুলিশের আয়োজনে শনিবার সকালে পুলিশ লাইন্স মাঠে জেলার ১২টি থানা থেকে আগত প্রায় ৮০০ হতদরিদ্র পরিবারের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করা হয়েছে। যুক্তরাজ্যভিত্তিক সংগঠন ইচ্ছা ফাউন্ডেশন এবং আল ইনদাদ ফাউন্ডেশনের সহযোগিতায় অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে হতদরিদ্র মানুষের হাতে খাদ্য সামগ্রী তুলে দেন জেলা পুলিশ সুপার আলী আশরাফ ভূঞা বিপিএম (বার)। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে জেলা পুলিশ সুপার বলেন, জেলার ১২ টি থানা থেকে প্রকৃত চাহিদা সম্পন্ন ৮০০ পরিবার বাছাই করে এই খাদ্য সামগ্রী তাদের হাতে তুলে দেওয়া হচ্ছে। ধনী-গরীব ভেদাভেদ ভুলে সবাই যেন সৃষ্টিকর্তার ইবাদতের মাধ্যমে পবিত্র মাহে রমজান সুষ্ঠুভাবে পালন করতে পারে অনুষ্ঠানে তিনি সেই কামনা করেন। সেই সাথে প্রতি বছর জেলা পুলিশের মাধ্যমে সাধারণ মানুষের সাথে রমজান ও ঈদের আনন্দ ভাগাভাগি করতে যে সংগঠনগুলো সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দেয় তিনি তাদের সকলকে প্রতি জেলা পুলিশের পক্ষে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন। আল ইনদাদ ফাউন্ডেশনের পরিচালক মাজহারুল আলমের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন ইচ্ছা ফাউন্ডেশন যুক্তরাজ্যের ট্রাস্টি ইলিয়াস ইসমাইল রেহমানি। অতিরিক্ত পুলিশ সুপার তাপস কুমার পালের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে জেলা পুলিশের পক্ষে উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) সনাতন চক্রবর্তী, পদোন্নতিপ্রাপ্ত অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আনোয়ার হোসেন, সিনিয়ার সহকারী পুলিশ সুপার হেলেনা আক্তার, সহকারী পুলিশ সুপার সাবিনা আক্তার সহ ১২ টি থানা থেকে আগত জেলা পুলিশের বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তাবৃন্দ। উল্লেখ্য অনুষ্ঠানে জেলা পুলিশের নিজস্ব ব্যবস্থাপনায় বিভিন্ন উপজেলা থেকে বাছাইকৃত দরিদ্র পরিবারের প্রতিনিধিকে নিয়ে আসা হয় এবং তাদের প্রত্যেকের হাতে আসন্ন রমজানকে সামনে রেখে প্রায় ৩২ কেজি খাদ্য সামগ্রী তুলে দেওয়া হয়। যার মধ্যে ছিল চাল ১৫ কেজি, মসুর ডাল ১ কেজি, সয়াবিন তেল ২ লিটার, আটা ২ কেজি, চিড়া ২ কেজি, খেজুর ২ কেজি, লবণ ২ কেজি, চিনি ২ কেজি, ছোলা ২ কেজি, গুড়া দুধ ১ কেজি, ট্যাংক পাউডার ১ প্যাকেট এবং সেমাই ৪৪০ গ্রামের ২ প্যাকেট।



Comments are Closed