বিশ্বকাপ থেকে বাদ পড়লো ভারতীয় আম্পায়ার

চার বছর পর আবারও শুরু হতে যাচ্ছে ক্রিকেটের সবচেয়ে বড় আসর বিশ্বকাপ ক্রিকেট। ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিলের (আইসিসি) দ্বাদশতম এ আসর বসছে ইংল্যান্ড অ্যান্ড ওয়েলসে। বিশ্বকাপে ম্যাচ পরিচালনার জন্য ১৬ জন আম্পায়ারকে নির্বাচন করেছিল ক্রিকেটের সর্বোচ্চ সংস্থা আইসিসি।

সেই ১৬ জন আম্পায়ারের একজন সুন্দারাম রবি, তিনি ভারতের প্রতিনিধিত্বকারী একমাত্র আম্পায়ার ছিলেন। তবে বুধবার (২৪ এপ্রিল) আইসিসির আম্পায়ার্স কমিটির মিটিংয়ে তাকে আম্পায়ারকে এলিট প্যানেল থেকে বাদ দেয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

৫৩ বছর বয়সী সুন্দারাম বর্তমানে আইপিএলে আম্পায়ারের দায়িত্ব পালন করছেন। কিন্তু তার আম্পায়ারিং নিয়ে রয়েছে তীব্র সমালোচনা। বিশেষ করে এবারের আসরে রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালুরুর বিপক্ষে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের এক ম্যাচে লাসিথ মালিঙ্গার পরিষ্কার ‘নো’ বল এড়িয়ে যাওয়ার পর বিতর্ক শুরু হয় সুন্দারামের আম্পায়ারিং নিয়ে।

মাত্র ৬ রানে হারা ওই ম্যাচের পর ব্যাঙ্গালুরু অধিনায়ক বিরাট কোহলি রীতিমত ধুয়ে দেন আম্পায়ারদের। ক্ষুব্ধ কোহলি বলেন, আমরা আইপিএল খেলছি, এটা কোনো ক্লাব ক্রিকেট নয়। শেষ বলে এটা হাস্যকর একটা কল ছিল। আম্পায়ারদের তো চোখ খোলা রাখা উচিত, এটা এক ইঞ্চি দূরত্বের নো বল ছিল।

এদিকে সুন্দারামকে এলিট প্যানেল থেকে সরিয়ে দেয়ার বিষয়ে আইসিসি বলেছে, এলিট প্যানেলে টিকে থাকা খুব কঠিন। টপ লেভেলের খেলায় অনেক প্রতিদ্বন্দ্বিতা এবং চাপ থাকে। গত কয়েক বছরে ১২ এলিট লেভেলের আম্পায়ারদের মধ্যে সবচেয়ে খারাপ রিপোর্ট রবির।

বিশ্বকাপে ম্যাচ পরিচালনার জন্য ক্রিকেটের সর্বোচ্চ সংস্থা আইসিসির নির্বাচিতদের আম্পায়ারদের মধ্যে সর্বোচ্চ ৫ জন ইংল্যান্ডের। অস্ট্রেলিয়ার আছেন ৪ জন। এছাড়া একজন করে ভারত, পাকিস্তান, দক্ষিণ আফ্রিকা, নিউজিল্যান্ড, ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও দুইজন শ্রীলঙ্কান আম্পায়ার রাখা হয়েছে।

আম্পায়ার

ইয়ান গোল্ড (ইংল্যান্ড), রিচার্ড ইলিংওর্থ (ইংল্যান্ড), রিচার্ড ক্যাটলবোরফ (ইংল্যান্ড), নাইজেল লং (ইংল্যান্ড), পল রেইফেল (অস্ট্রেলিয়া), রড টাকার (অস্ট্রেলিয়া), পল উইলসন (অস্ট্রেলিয়া), কুমার ধর্মসেনা (শ্রীলঙ্কা), রুচিরা পাল্লিয়াগুরুজ (শ্রীলঙ্কা), আলিম দার (পাকিস্তান), মারাইস ইরাসমুস (দক্ষিণ আফ্রিকা), ক্রিস গাফ্ফানে (নিউজিল্যান্ড), ব্রুস অক্সেনফোর্ড (অস্ট্রেলিয়া), জোয়েল উইলসন (ত্রিনিদাদ অ্যান্ড টোবাগো/ ওয়েস্ট ইন্ডিজ), মাইকেল গফ (ইংল্যান্ড)।

ম্যাচ রেফারি

ক্রিস ব্রড (ইংল্যান্ড), ডেভিড বুন (অস্ট্রেলিয়া), অ্যান্ডি পাইক্রফ্ট (জিম্বাবুয়ে), জেফ ক্রু (নিউজিল্যান্ড), রঞ্জন মাদুগাল্লে (শ্রীলঙ্কা), রিচি রিচার্ডসন (অ্যান্টিগা অ্যান্ড বারমুডা/ ওয়েস্ট ইন্ডিজ)।

Recommend to friends
  • gplus
  • pinterest

About the Author