Main Menu

ধর্ষণ চেষ্টার দায়ে ৭০ বছরের বৃদ্ধকে গণপিটুনি

নাটোরের সিংড়া উপজেলায় ৭০ বছর বয়সী এক বৃদ্ধের বিরুদ্ধে দ্বিতীয় শ্রেণি পড়–য়া শিশুকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে। বিষয়টি জানাজানি হলে এলাকাবাসী ওই বৃদ্ধকে গণপিটুনি দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করে। এ ঘটনায় মামলাও দায়ের হয়েছে।সিংড়া থানা পুলিশের ওসি মনিরুল ইসলাম এবং স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান রশিদুল ইসলাম মৃধা বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

সিংড়া উপজেলার চামারি ইউনিয়নের চেয়ারম্যান রশিদুল ইসলাম মৃধা প্রত্যক্ষদর্শী এবং ওই শিশুর পরিবারের বরাত দিয়ে জানান, চামারি ইউনিয়নের সোনাপুর গ্রামের আব্দুল মান্নানের মেয়ের সঙ্গে ছেলের বিয়ে দেন লোকমান হোসেন নামে ওই বৃদ্ধ। সেই সুবাদে লোকমান হোসেন প্রায়ই বিয়াই বাড়িতে বেড়াতে আসেন।

বৃহ¯পতিবার বিকেলে ওই শিশু বাড়ির পাশে খেলছিল। এক পর্যায়ে লোকমান হোসেন শিশুটিকে কাছে ডেকে বিভিন্ন কথার ছলে পাশের বাড়িতে নিয়ে যান। এ সময় ওই বাড়িতে কেউ ছিল না। সেখানে লোকমান শিশুটির শরীরের ¯পর্শকাতর স্থানে হাত দেন ও ধর্ষণের চেষ্টা চালান।

এ সময় বাড়িতে ফিরে ঘটনাটি দেখে ফেলেন ওই বাড়ির গৃহকর্ত্রী। তিনি শিশুটির বাবার কাছে গিয়ে ঘটনা বললে স্থানীয় লোকজন বৃদ্ধকে আটক করে গণপিটুনি দেয়। খবর পেয়ে ইউপি চেয়ারম্যান ঘটনাস্থলে পৌঁছে রাত ৯টার দিকে লোকমান হোসেনকে পুলিশে সোপর্দ করেন।

সিংড়া থানা পুলিশের ওসি মনিরুল ইসলাম বিষয়টির সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, এ ঘটনায় শিশুটির বাবা বাদী হয়ে লোকমান হোসেনের বিরুদ্ধে মামলা করেছেন।