প্রধান সূচি

পরিস্থিতির অবনতি হলে আবারো লকডাউন: জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী

বিয়ে করেছেন জনপ্রিয় মডেল ও অভিনেতা নিলয় আলমগীর। পাত্রীর নাম তাসনুভা তাবাসসুম হৃদি। তিনি ঢাকা গার্হস্থ্য অর্থনীতি কলেজের প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থী। তার বাসা ঢাকার মগবাজারে। আর গ্রামের বাড়ি ভোলায়। নিলয় নিজেই গণমাধ্যমকে এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি আরও জানান, গত ৭ জুলাই তার উত্তরার বাসায় শুভবিবাহের কাজ সম্পন্ন হয়েছে। করোনার কারণে ছোট পরিসরেই করা হয় বিয়ের আয়োজন। ফলে বিয়েতে শুধুমাত্র দুই পরিবারের সদস্যরাই উপস্থিত ছিলেন। তবে বিয়ের খবরটি বুধবারই (১১ আগস্ট) মিডিয়াকে জানান নিলয়। এদিন নিজের ফেসবুকেও শুভ কাজের খবরটি ভক্তদের সঙ্গে শেয়ার করেন ‘বেইলি রোড’ অভিনেতা।
করোনা সংক্রমণ পরিস্থিতির আরো অবনতি হলে সরকারের পরবর্তী কৌশল কী হবে- জানতে চাইলে প্রতিমন্ত্রী বলেন, দুটি কৌশলই আমরা অবলম্বন করব। একটা হলো বিধিনিষেধ বা লকডাউন দেওয়া। আরেকটি হচ্ছে ছেড়ে দেওয়া। কিন্তু সবাইকে মাস্ক পরতে হবে।

তাহলে পরিস্থিতি খারাপ হলে আবার লকডাউন দেবেন- এমন প্রশ্ন করলে তিনি বলেন, হ্যাঁ, পৃথিবীর যে কোনো দেশে বাড়লেই, যেমন অস্ট্রেলিয়াতে সেনাবাহিনী নামানো হয়েছে, কারফিউ দেওয়া হয়েছে। আমেরিকাতে দেওয়া হয়েছে। দেওয়া হচ্ছে কেন? কারণ এর কোনো বিকল্প নেই।

এদিকে আগামী ১৯ আগস্ট থেকে রাস্তায় শতভাগ গণপরিবহন চলাচল করার অনুমতি দিয়েছে সরকার। বৃহস্পতিবার (১২ আগস্ট) মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে এ সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়েছে। প্রজ্ঞাপনে বলা হয়, যথাযথভাবে স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণ করে সড়ক, রেল ও নৌ পথে সব ধরনের গণপরিবহন চলাচল করতে পারবে।

এদিকে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে প্রতিদিনই মৃত্যু ও শনাক্ত বাড়ছে। সবশেষ তথ্য মতে, বুধবারও দেশে ২৩৭ জন করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন। শনাক্ত হয়েছে ১০ হাজারের বেশি। এ পর্যন্ত দেশে করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ২৩ হাজার ৩৯৮ জন।