প্রধান সূচি

পাবনায় স্বতন্ত্র প্রার্থীর হামলায় আওয়ামীলীগ নেতা নিহত

স্টাফ রিপোর্টারঃ পাবনায় স্বতন্ত্র প্রার্থীর হামলায় পাবনা সদর উপজেলার হেমায়েতপুর ইউনিয়নের নাজিরপুর হাটপাড়া গ্রামে মঙ্গলবার সন্ধায় আওয়ামীলীগ নেতা শামীম হোসেন (৪০) নিহত হয়েছে। নিহত শামীম নাজিরপুর হাটপাড়া গ্রামের নূর আলী প্রাং এর ছেলে। শামীম হিমায়েতপুর ইউনিয়নের ১,২,৩ নং ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের প্রচার সম্পাদক। ঘটনার পর পাবনার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অপরাধ) মাসুদ আলম সহ পুলিশের উদ্ধতন কর্মকর্তা এবং বিভিন্ন গোয়িন্দা সংস্থা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।
এলাকাবাসি ও পুলিশ সূত্রে জানাগেছে, হিমায়েতপুর ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনে ৭ জন প্রতিদ্বন্দিতা করেন। এর মধ্যে ৬জন স্বতন্ত্র প্রার্থী। নির্বাচনে স্বতন্ত্র প্রার্থী জাহাঙ্গীর আলম বিজয় অর্জন করেন। নির্বাচনের ফলাফল ঘোষণার পর থেকেই আওয়ামীলীগ মনোনীত প্রার্থী মঞ্জুরুল ইসলাম মিঠুর সমর্থকদের সাথে স্বতন্ত্র প্রার্থী তরিকুল ইসলাম নিলুর সমর্থকদের সাথে বিরোধ তৈরী হয়। স্বতন্ত্র প্রার্থী তরিকুল ইসলাম নিলুর পরাজয়ের জন্য আওয়ামীলীগ প্রার্থীর সমর্থকদের দায়ী করে নানা রকম ভয়ভীতি ও কটুক্তি করেন।
একই সুত্রে জানা গেছে, মঙ্গলবার সন্ধ্যা ৬টার দিকে শামীম নজিরপুর হাটপাড়া বাজারে এলে নিলু সহ তার সমর্থকরা তাকে সহ তার সমর্থকদের নানা রকম বকাবকি করে। এ সময় প্রতিবাদ করলে নিলু ও তার ছেলে ইমরান তাদের সমর্থকদের নিয়ে শামীমের উপর হামলা চালায়। এ সময় তারা বেশ কয়েকটি গুলি করে। এতে শামীম হোসেন গুলিবিদ্ধ হয়ে গুরুতরভাবে আহত হয়। স্থানীয় লোকজন তাকে উদ্ধার করে পাবনা জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসকরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন।
এ বিষয়ে পাবনা থানার অফিসার ইনচার্জ আমিনুল ইসলাম জানান, নিহত শামীম হোসেনের ময়না তদন্ত শেষে তার আত্মীয় স্বজনেরা মৃত দেহ দাফনের কাজে ব্যস্ত আছেন। আভিযোগ পেলেই এ ব্যাপারে পাবনা থানায় মামলা দায়ের করা হবে।